iPhone মডেলের জন্য নতুন ব্যাটারি প্রযুক্তির উপর কাজ করছে Apple, বডি থেকে ভিন্ন করা যাবে ব্যাটারি

Subheccha Das

Apple Simplify iPhone Battery Replacement process with new technology : গত সপ্তাহে, অ্যাপল তাদের আইফোনে ব্যবহৃত ব্যাটারি কেসিংয়ের ডিজাইন পরিবর্তনের উপর কাজ করছে এমন কানাঘুষো শোনা গিয়েছিল। মূলত ডিভাইস থেকে ব্যাটারি আলাদা করা এবং ব্যাটারি প্রতিস্থাপনের পদ্ধতি সহজ করার উদ্দেশ্যেই এমনটা করা হচ্ছে বলে জানা গেছে। যাইহোক এখন আবার খবর পাওয়া যাচ্ছে কুপারটিনো ভিত্তিক সংস্থাটি এমন একটা নতুন প্রযুক্তির ব্যবহারের পরিকল্পনা করছে যা ভবিষ্যতে আইফোন মডেলগুলিতে ব্যাটারি প্রতিস্থাপনের প্রক্রিয়াকে আরো সহজ করে তুলবে।

সাম্প্রতিক একটি রিপোর্ট অনুসারে, টিম কুকের সংস্থাটি আইফোনের ব্যাটারি প্রতিস্থাপনের জন্য একটা নতুন পদ্ধতির উপর কাজ করছে। যার নাম “ইলেক্ট্রিক্যালি ইন্ডিউস্ড অ্যাডহেসিভ ডিবন্ডিং” দেওয়া হয়েছে। নামের অর্থ ধরলে কিছুটা এমন দাঁড়ায় যে – বৈদ্যুতিকভাবে আঠালো উপাদানের থেকে ব্যাটারির বাঁধন আলগা করার পদ্ধতি। আরো সহজ করে বললে, এই প্রযুক্তি বিদ্যুতের অল্প ঝটকা দিয়ে আইফোনের ভিতরে থাকা ব্যাটারিকে আলগা করে দেবে যাতে ব্যবহারকারীরা সহজে তা ডিভাইস থেকে অপসারণ করতে পারে।

জানিয়ে রাখি, অ্যাপলের বর্তমান প্রজন্মের আইফোন মডেলগুলিতে ফয়েল পরিবেষ্টিত ব্যাটারি ব্যবহার করা হয়। আর ব্যাটারিকে সঠিক জায়গায় আটকে রাখার জন্য আঠালো স্ট্রিপ দেওয়া হয়। যার দরুন হ্যান্ডসেটের চ্যাসিস থেকে ব্যাটারি ইউনিট বের করার কোনো উপায় থাকে না। এক্ষেত্রে কেউ যদি ফোন থেকে ব্যাটারি বের করতে চায়, তবে টুইজার ব্যবহার করতে হবে।

কিন্তু শোনা যাচ্ছে, টেক জায়ান্টটি ভবিষ্যতে আইফোন ব্যাটারিগুলিতে ফয়েলের পরিবর্তে মেটাল বা ধাতু ব্যবহার করতে পারে। যাতে নতুন প্রযুক্তির সাহায্যে বিদ্যুৎ তরঙ্গ খেলিয়ে ব্যাটারি সহজেই খোলা এবং প্রতিস্থাপন করা সম্ভব হয়।

যাইহোক অ্যাপল চলতি বছরে লঞ্চ হতে চলা আইফোন ১৬ সিরিজের যেকোনো একটি মডেলে হয়তো ‘রিপ্লেসেবল’ ব্যাটারি দিতে পারে। তবে ২০২৫-২০২৬ সালের জন্য আপকামিং আইফোন সিরিজের প্রত্যেকটি মডেলেই “ইলেক্ট্রিক্যালি ইন্ডিউস্ড অ্যাডহেসিভ ডিবন্ডিং” প্রযুক্তি উপলব্ধ করা হতে পারে।

WhatsApp Group Join Now
Telegram Channel Join Now
Share This Article
Leave a comment